বাংলাদেশ

নৃত্যালয় কুলাউড়ার ৮ম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন

নৃত্যালয় কুলাউড়ার ৮ম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে গত ১৩ সেপ্টেম্বর (মঙ্গলবার) কুলাউড়ার জেলা পরিষদ মিলনায়তনে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। জুড়ির শাহ নিমাত্রা সাগরনাল ফুলতলা ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ মো. জহির উদ্দিনের সঞ্চালনায় ও শিক্ষক মধুজিত ভট্টাচার্যের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কুলাউড়া পৌরসভার মেয়র অধ্যক্ষ সিপার উদ্দিন আহমদ। নৃত্যালয় কুলাউড়ার নৃত্যবিভাগের শিক্ষার্থীদের সম্মিলিত কন্ঠে ‘আগুনের পরশমণি ছোঁয়াও প্রাণে’ গানের মধ্যদিয়ে অনুষ্ঠানের সূচনা হয়। স্বাগত বক্তব্য রাখেন নৃত্যালয় কুলাউড়ার পরিচালক মো. দেলোয়ার হোসেন দূর্জয়। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সংস্কৃতি অনুরাগী মইনুল ইসলাম শামীম।

অনুষ্ঠানের অতিথিদের সঙ্গে অংশগ্রহণকারী শিল্পীবৃন্দ

নৃত্যে তোমার মুক্তির রূপ, নৃত্যে তোমার মায়া, / বিশ্বতনুতে অণুতে অণুতে কাঁপে নৃত্যের ছায়া” শ্লোগানে অনুষ্ঠিত আয়োজনে সাংস্কৃতিক পর্বের অনুষ্ঠান সঞ্চালনায় ছিলেন নৃত্যালয় কুলাউড়ার সাবেক শিক্ষার্থী জান্নাতুল ফেরদৌস সাকি। আলোচনা সভা শেষে অনুষ্ঠানের প্রধান আকর্ষণ মরমি কবি হাসন রাজার জীবন অবলম্বনে মোস্তাক আহমেদ রচিত গীতি নৃত্যনাট্য ‘হাসন রাজা’ পরিবেশিত হয়। নাটকটির নির্দেশনায় ছিলেন মো. দেলোয়ার হোসেন দূর্জয়।

হাসন রাজা গীতি নৃত্যনাট্যের দৃশ্য

নৃত্যালয় কুলাউড়া পরিবেশিত হাসন রাজা গীতি নৃত্যনাট্যের বিভিন্ন চরিত্রে যারা অংশগ্রহণ করেন, হাসন রাজার চরিত্রে মো. দেলোয়ার হোসেন দূর্জয়, হুরমত জাহান (মা) চরিত্রে সুদীপা দাস, নায়েব চরিত্রে আশিক আহমেদ, গোবিন্দ চন্দ্র চরিত্রে নাহিদ তালুকদার, আজিজা বানু চরিত্রে অনামিকা, চন্দ্রা চরিত্রে নবনীতা সরকার, পীর চরিত্রে সৃজন ধর, সাজেদা চরিত্রে সাবরিন আরিয়ান রোদেলা, উদাই চরিত্রে অপু মিয়া, আয়াত আলী চরিত্রে আশিক আহমেদ, দিলারাম চরিত্রে অনুরাধা দে, বাইজি চরিত্রে রোদেলা, পূজা।

অনুষ্ঠানের সভাপতি মধুজিত ভট্টাচার্য্যের সঙ্গে অধ্যক্ষ মো. জহির উদ্দিন ও বড়লেখা নজরল একাডেমির পরিচালক জুনেদ রায়হান রিপন

কোরাস নৃত্যে শ্রেয়া, সোহা, আশিক, নদী, নাহিদ, অনুরাধা, রোদেলা, সৃজন, অনামিকা, অপু, পূজা এবং শিশু শিল্পী শার্লিন আরিয়ান হৃদি, অমেগা, আবৃত্তি, নবীন, ঐশ্বর্য, ও নিঝুম। অনুষ্ঠানে আবহ সঙ্গীত ও সংলাপ সহযোগিতায় ছিলো বড়লেখা নজরুল একাডেমি।

Back to top button