ক্যারিয়ারবাংলাদেশ

ঢাকার রাশিয়ান হাউস বৃত্তিপ্রাপ্ত বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের অভিনন্দন জানিয়েছে

রাশিয়ান সরকারি স্কলারশিপ

ঢাকায় রাশিয়ান হাউসের পরিচালক পাভেল দ্ভয়চেনকভ উচ্চ শিক্ষার গন্তব্য হিসেবে রাশিয়াকে বেছে নেওয়ার সিদ্ধান্তের জন্য বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের প্রশংসা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন।

রাশিয়ান সরকারি স্কলারশিপপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের সভা ও বিদায়ী অনুষ্ঠানে তিনি তাদের একটি শুভ বিদায় বার্তা দেন এবং তাদের সকলের মঙ্গল ও উজ্জ্বল ভবিষ্যৎ কামনা করেন।

তিনি সবাইকে স্মরণ করিয়ে দেন যে, ১৯৭২ সাল থেকে সোভিয়েত রাশিয়ান বিশ্ববিদ্যালয়ের পাঁচ হাজারেরও বেশি বাংলাদেশি স্নাতক সরকারি, বেসরকারি ও বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংস্থায় কাজ করার মাধ্যমে দেশে ও বিদেশে সম্মানজনক পেশায় যোগদান করতে সক্ষম হয়েছে এবং দেশ-মাতৃকার উন্নয়নে তারা ব্যাপক ভূমিকা রেখেছেন।

তিনি আরও উল্লেখ করেন যে ২০২৩-২০২৪ শিক্ষাবর্ষে রাশিয়ায় উচ্চ শিক্ষার জন্য রাশিয়ান সরকারী বৃত্তির সংখ্যা ছিল ১১০টি। আশা করা হচ্ছে যে শিক্ষাবর্ষ ২০২৪-২০২৫ থেকে ধীরে ধীরে সংখ্যাটি বাড়বে।

সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশস্থ রুশ দূতাবাসের কনস্যুলার সেকশনের প্রধান ইলিয়া ভ্লাদিমিরোভিচ স্তুপাচেঙ্কো; বাংলাদেশস্থ রুশ দূতাবাসের ভাইস কনস্যুল জনাব আলেকজান্ডার তেরেখভ; ড. তাইবুল হাসান খান, সোভিয়েত অ্যালুমনি ও জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের প্রাক্তন অধ্যাপক (ডক্টর অফ হিস্ট্রি, পিপলস ফ্রেন্ডশিপ ইউনিভার্সিটি অফ রাশিয়া); ইয়াসমিন সুলতানা, শিক্ষিকা, রাশিয়ান ভাষা কোর্স, রাশিয়ান হাউস ইন ঢাকা; ড. মোহাম্মদ আমজাদ হোসেন, উপসচিব, আর্থ-সামাজিক অবকাঠামো বিভাগ, পরিকল্পনা কমিশন, পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ; এবং বজলুল হাসান সৈয়দ, ইন-চার্জ, শিক্ষা বিভাগ, রাশিয়ান হাউস ইন ঢাকা।

ড. তাইবুল হাসান খান তার বাস্তব অভিজ্ঞতা থেকে নিশ্চিত করে বলেন যে বাংলাদেশী শিক্ষার্থীদের রাশিয়ার যেকোনো বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াশোনা শেষ করে বাংলাদেশসহ বিশ্বের যেকোনো দেশে চাকরির সুযোগ রয়েছে।

সভার পর রাশিয়ার পিপলস ফ্রেন্ডশিপ ইউনিভার্সিটি (পিএফইউআর)এর শিক্ষার্থীরা ভিডিও কনফারেন্সে যোগ দেন। ভিডিও কনফারেন্সে রাশিয়ার বাংলা প্রেসক্লাব ও বাংলাদেশ স্টুডেন্টস ইউনিয়নের (পিএফইউআর) সদস্যরা অংশ নেন।

তারা রাশিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ে উচ্চশিক্ষা নিতে যাওয়া বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের অভিনন্দন জানান। তারা রাশিয়ায় অধ্যয়নের অভিজ্ঞতা এবং বন্ধুত্বপূর্ণ এবং রাশিয়ানদের আন্তরিক জীবনধারাও শেয়ার করেন।

সভা শেষে সকল শিক্ষার্থীদের হাতে ভিসাসহ যাবতীয় কাগজপত্র হস্তান্তর করা হয়।

আরও পড়ুনঃ ঢাকার রাশিয়ান হাউসের আর্ট সেমিনারের আয়োজন

Back to top button