যুক্তরাষ্ট্র সংবাদ

ইসরাইল গাজার বেসামরিক মানুষদের যথাসম্ভব রক্ষায় ব্যর্থ: অ্যান্টনি ব্লিংকেন

হামাস জঙ্গিদের দমনে ইসরাইলের সবচেয়ে বড় সমর্থক যুক্তরাষ্ট্র রবিবার বলেছে, গাজায় বেসামরিক ফিলিস্তিনিদের রক্ষার ব্যাপারে ইসরাইলি সেনা চেষ্টা করছে বলে ঘোষণা দিলেও তারা সেই কাজে ব্যর্থ হচ্ছে।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিংকেন সিএনএন-এর ‘স্টেট অফ দ্য ইউনিয়ন’ অনুষ্ঠানে বলেন, বেসামরিক মানুষদের রক্ষা করা জরুরি, তবে ইসরাইলি সেনা গাজায় হামাসের বিরুদ্ধে অভিযান চালানোর সময় বেসামরিক মানুষকে রক্ষা করতে ব্যর্থ হচ্ছে।

তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্র সাময়িক যুদ্ধ বিরতি চাইছে যাতে গাজায় আরও ত্রাণ দেয়া যায় এবং স্পষ্টভাবে কিছু জায়গা চিহ্নিত করা যেখানে ইসরাইল বেসামরিক মানুষকে আক্রমণ করবে না।

ব্লিংকেন এবিসি চ্যানেলের ‘দিস উইক’ অনুষ্ঠানে বলেন, ইসরাইলি সেনার ঘোষণা আর ফলাফলের মধ্যে ফারাক আছে।

গাজার হামাস পরিচালিত স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় বলছে, গাজায় ইসরাইলের বোমাবর্ষণে গত সাত সপ্তাহে ১৭ হাজার্রের বেশি মানুষ নিহত হয়েছে, যাদের বেশিরভাগই নারী ও শিশু। এর আগে হামাস জঙ্গিরা ৭ অক্টোবর ইসরাইলে অতর্কিত হামলায় প্রায় ১২০০ মানুষকে হত্যা করে এবং ২৪০ জনকে জিম্মি করে। হামাসের কাছে এখনও প্রায় ১৪০ জন জিম্মি আছে।

জাতিসংঘের মহাসচিব অ্যান্তনিয় গুত্তেরেস ২৪ অক্টোবর ২০২৩ তারিখে নিরাপত্তা পরিষদে দেয়া বক্তব্যে মধ্যপ্রাচ্য পরিস্থিতি সম্পর্কে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেছেন, গাজাতে ইসরাইলের অবরোধ ‘আন্তর্জাতিক মানবতা আইনের স্পষ্ট লংঘন’।

ব্লিংকেন বলেন, সবাই এই যুদ্ধের আশু সমাপ্তি চায় কিন্তু সেটা কখন হবে, সেই সিদ্ধান্ত নেবে ইসরাইল। হামাস তাদের হামলা বন্ধ করতে পারে এবং বাকি জিম্মিদের মুক্তি দিতে পারে।

তবে তিনি বলেন, সেনা অভিযান শেষ হলেও এটা শেষ হবে না। ফিলিস্তিনিদের ইচ্ছার বাস্তবায়ন না হলে ইসরাইলের সাথে স্থায়ী শান্তি প্রতিষ্ঠিত হবে না।

যুক্তরাষ্ট্র ১৯৯৭ সালে হামাসকে সন্ত্রাসী সংগঠন হিসেবে চিহ্নিত করে। ইসরাইল, মিশর, ইউরোপীয় ইউনিয়ন এবং জাপানও হামাসকে সন্ত্রাসী গোষ্ঠী হিসেবে বিবেচনা করে।

ইসরাইলের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা হানেগবি বলেছেন, এ নাগাদ ইসরাইলি সেনা অন্তত ৭ হাজার হামাস জঙ্গিকে হত্যা করেছে, তবে ঐ হিসাব কিভাবে পাওয়া গেল, তা তিনি বলেননি। ভয়েস অফ আমেরিকা

বাংলা সংবাদের খবর পেতে গুগল নিউজ চ্যানেল ফলো করুন

Back to top button