প্রচ্ছদ

মিশিগানে বাংলাদেশী আমেরিকান পাবলিক এফেয়ার্স কমিটির বার্ষিক নৈশভোজ ২০১৯ সম্পন্ন

১১ নভেম্বর ২০১৯, ২৩:৩৩

সৈয়দ শাহেদুল হক

মিশিগানে বাংলাদেশী আমেরিকান পাবলিক এফেয়ার্স কমিটির বার্ষিক ডিনার ২০১৯ গত ১০ নভেম্বর বাংলাটাউনস্থ কাবাব হাউস এন্ড ব্যাঙ্ককুইট সেন্টারে অনুষ্ঠিত হয়েছে, এবারে নৈশভোজের প্রতিপাদ্য বিষয় ছিল সেন্সাস ২০২০। ব্যাপেকের সভাপতি ডক্টর শফিউল হাসানের স্বাগতিক বক্তব্যের মাধ্যমে অনুষ্টানের শুভসূচনা হয় এবং এর পরই সেন্সাস ২০২০ এর কার্যক্রম উপস্থাপনা করেন সংগঠনের অন্যতম ভাইস প্রেসিডেন্ট ডক্টর আব্দুর রাজ্জাক। গননায় কেউ যাতে বাদ না পড়েন এজন্য জনসচেতনতা বাড়ানোর জন্য গঠিত গননা কমিটিকে পরিচয় করিয়ে দেন সংগঠনের পাবলিক এফেয়ার্স বিষয়ক ভাইস প্রেসিডেন্ট ও রিয়েল এষ্টেট ব্যবসায়ী সৈয়দ শাহেদুল হক।

সেন্সাস কার্যক্রমের উপর অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ইউ এস সেন্সাস বুর‍্যের আঞ্চলিক প্রধান ভিক্টোরিয়া ম্যাক্লেডন, ডেট্রয়েট মেয়রের প্রতিনিধি ভিক্টোরিয়া কভিন, সিএফএসইএম এর নির্বাহী পরিচালক মেলিসা স্মাইলি, মাইনরিটি মিডিয়া কো-অর্ডিনেটর হেগ ওশাগেন প্রমুখ। বাংলাদেশী আমেরিকান কমিউনিটির উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা পালন করায় পাবলিক এফেয়ার্স কমিটির পক্ষ থেকে ডেট্রয়েট পুলিশের উপ-প্রধান টাড বেটিসন, ইস্টার্ন মিশিগান ইউনির্ভাসিটির প্রফেসর ডক্টর সু উইন, ইসিটেপ প্রোগ্রাম কো-অর্ডিনেটর জন রেন্ডি বাটলার এবং বাংলা টাউনের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান কাবাব হাউসকে এওয়ার্ড প্রদান করা হয়, বোর্ড চেয়ারম্যান ও বিশিষ্ট শিল্পপতি প্রকৌশলী ইহসান তাকবীম বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ ও প্রতিষ্টানের হাতে এওয়ার্ড তুলে দেন।

উল্লেখ্য যে, কাবাব হাউসের পক্ষে এওয়ার্ড গ্রহণ করেন প্রতিষ্টানের অন্যতম পরিচালক ও ব্যাপেকের ভাইস প্রেসিডেন্ট (মিডিয়া) সেলিম আহমদ। জেনারেল মোটর্সের এক্সিকিউটিভ প্রকৌশলী ও ব্যাপেকের অন্যতম ভাইস প্রেসিডেন্ট সায়ীদ ফয়সলের সঞ্চালনা ও পরিকল্পনায় অন্যান্য পর্বে অংশ গ্রহণ করেন সংগঠনের অন্যতম ভাইস প্রেসিডেন্ট বিশিষ্ট প্রকৌশলী ডক্টর আজিজ খন্দকার, ডক্টর শফিকুল বারী তনু ও প্রকৌশলী কাওসার খাঁন এবং সার্বিক সহযোগিতায় ছিলেন নিকি তাকবীম, সাবিনা চৌধুরী, মাহনাজ চৌধুরী ও নাজিয়া চৌধুরী। অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ওয়ারেন সিটি কাউন্সিলের নব-নির্বাচিত কাউন্সিলম্যান রোনাল্ড পাপান্ড্রিয়া, জনাতন ল্যাফারডি এবং হ্যামট্রামিক সিটি কাউন্সিলে পুনঃ নির্বাচিত কাউন্সিলম্যান ও ব্যাপেকের অন্যতম ভাইস প্রেসিডেন্ট কামরুল হাসান। এছাড়াও বাংলাদেশী আমেরিকান পাবলিক এফেয়ার্স কমিটিকে ধন্যবাদ জানিয়ে কমিউনিটির বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ওয়ারেন সিটি রিভিউ বোর্ডের সদস্য ফয়সল আহমেদ, ইউসুফ কামাল, মোহাম্মদ আবদুল মালিক, খলকুর রহমান, মোহাম্মদ আজিজ সুমন, মোহাম্মদ হোসেন সোলেমান, মাহফুজুর রহমান চৌধুরী, কামাল রহমান, নুরুল আমিন মানিক প্রমুখ। অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ওবামা কেয়ার নেভিগেটর ইঞ্জিনীয়ার সাইফুল ইসলাম, মোহাম্মদ মহসিন, দেওয়ান আবুজর চৌধুরী, ইমাম আবদুল লতিফ আজম, ব্যবসায়ী সমজিদ আলম, ময়নুল হক, সিডিআর মসজিদের পরিচালক রুহুল হুদা মুবিন, ইমাম ফখরুল ইসলাম, আলাদিন সুইটসের পরিচালক মাহবুব চৌধুরী আলাল, মিছবা চৌধুরী ও বাংলাদেশ এসোসিয়েশন অব মিশিগানের সাবেক সভাপতি আকীকুল হক শামীম প্রমুখ।

এখানে উল্লেখ্য যে ২০০৪ সালে বাংলাদেশী আমেরিকান পাবলিক এফেয়ার্স কমিটি গঠিত হয়, সংক্ষেপে যা ব্যাপেক নামেই পরিচিত। প্রতিষ্টালগ্ন থেকে সংঠনের উদ্দ্যেগে কমিউনিটির উন্নয়নকল্পে উল্লেখযোগ্য সংখ্যক প্রকল্প হাতে নেয়া হয়েছে, এগুলোর মধ্যে রয়েছে বাংলাটাউন, ব্যালটে বাংলা সংযোজন, ওবামা কেয়ার, ইএসেল ও সিটিজেনশিপ প্রোগ্রাম, ইসিটেপের মাধ্যমে বাংলাদেশের সংগে পুলিশ ট্রেনিং আদান প্রদান, ডি এইচ এস প্রোগ্রাম, ইউ সেন্সাস, ল’এনফোর্সমেন্ট, হিউম্যান রাইটস ইত্যাদি



এ সংবাদটি 877 বার পড়া হয়েছে.
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আমাদের সাথে কানেক্টেড থাকুন

আমাদের মোবাইল এপ্পসটি ডাউনলোড করুন