প্রচ্ছদ

আজকের শিক্ষার্থীরা ২০৪১ সালে উন্নত বাংলাদেশের সুফল ভোগ করবে’

২২ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৬:৩৫

banglashangbad.com

স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মোঃ তাজুল ইসলাম এমপি বলেছেন, আজকের শিক্ষার্থীরা আগামীদিনের ভবিষ্যৎ। তাদের সামনে বিপুল সম্ভাবনা। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের উন্নত বাংলাদেশ গড়ার মাধ্যমে বর্তমান প্রজন্ম তথা শিক্ষার্থীদের সম্ভাবনাকে কাজে লাগাতে প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। আজকের শিক্ষার্থীরা ২০৪১ সালে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের উন্নত বাংলাদেশের সুফল ভোগ করবে।

আজ শনিবার কুমিল্লার লাকসামের ঐতিহ্যবাহী নওয়াব ফয়জুন্নেছা সরকারি কলেজের বিভিন্ন উন্নয়ন কাজের ভিত্তিপ্রস্তর ফলক উন্মোচন এবং বার্ষিক সাহিত্য, সংস্কৃতি ও ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, শিক্ষা জাতির মেরুদন্ড। শিক্ষার্থীদের সুশিক্ষায় শিক্ষিত হতে হবে। সফল মানুষ হওয়ার স্বপ্ন থাকতে হবে। কল্যাণকর কাজে অন্যদেরকে উৎসাহিত করতে হবে। ছাত্রজীবনে জন এফ কেনেডীকে ভবিষ্যৎ স্বপ্নের বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে তিনি আমেরিকার প্রেসিডেন্ট হওয়ার স্বপ্নের কথা জানিয়েছেন।

স্বপ্ন তাকে অভীষ্ট লক্ষ্যে নিয়ে গেছে। তিনি আমেরিকার প্রেসিডেন্ট হয়েছিলেন।

স্থানীয় সরকারমন্ত্রী মোঃ তাজুল ইসলাম বলেন, শিক্ষার্থীদেরকে পবিত্র মন নিয়ে সৃষ্টিশীল কাজে এগিয়ে আসতে হবে। দেশ ও জাতির জন্য আলোকিত মানুষ হিসেবে বড় হতে হবে। যে কোন সমস্যার উৎপত্তিস্থলে নিষ্পত্তি করতে হবে। ঘৃণিত নয়, উত্তম মানুষ হওয়ার প্রতিযোগিতা থাকতে হবে। সফল হতে হলে প্রবল ইচ্ছাশক্তি থাকতে হবে, কমিটমেন্ট রক্ষা করতে হবে। তবেই শিক্ষার্থীরা দেশ ও জাতির জন্য গৌরব বয়ে আনবে।

শিক্ষকদের উদ্দেশ্যে মন্ত্রী বলেন, আমাদের শিক্ষার লক্ষ্য অর্জনে শিক্ষকের ভূমিকা সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। তাই শিক্ষার মান উন্নয়নে শিক্ষকদেরকে প্রধান ভূমিকা পালন করতে হবে। শিক্ষকদের আন্তরিকভাবে শিক্ষাদান করে নৈতিক মূল্যবোধসম্পন্ন পরিপূর্ণ মানুষ তৈরি করতে হবে।

মন্ত্রী বলেন, নওয়াব ফয়জুন্নেছা সরকারি কলেজকে আধুনিকায়নের জন্য প্রায় শতকোটি টাকা বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। কলেজের উন্নয়ন কাজ শুরু হয়েছে। ক্রমান্বয়ে কলেজটিতে মাষ্টার্স কোর্সসহ পরিবহন সুবিধার ব্যবস্থা করা হবে। নওয়াব ফয়জুন্নেছা চৌধুরাণীর বাড়িকে সংরক্ষণের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

লাকসাম নওয়াব ফয়জুন্নেছা সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ বাবুল চন্দ্র শীলের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, লাকসাম উপজেলা চেয়ারম্যান অ্যাড. ইউনুছ ভুইয়া, পৌর মেয়র অধ্যাপক আবুল খায়ের, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মহব্বত আলী, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এ.কে.এম সাইফুল আলম, সহকারী কমিশনার (ভূমি) উজালা রাণী চাকমা, কলেজের উপাধ্যক্ষ প্রফেসর মেজর মিতা সফিনাজ, লাকসাম প্রেস ক্লাবের সভাপতি মো. তাবারক উল্লাহ কায়েস, সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. রফিকুল ইসলাম হিরা, কুমিল্লা জেলা পরিষদ সদস্য অ্যাড. তানজিনা আক্তার, প্যানেল মেয়র-২ আবদুল আলিম দিদার প্রমুখ।

নওয়াব ফয়জুন্নেছা সরকারি কলেজের বার্ষিক সাহিত্য, সংস্কৃতি ও পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠান শেষে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম এমপি কলেজের পাঁচতলা বিশিষ্ট ছাত্রাবাস, অধ্যক্ষের বাসভবন, ছয়তলা বিশিষ্ট প্রশাসনিক ও একাডেমিক কাম-বহুমূখী ভবনসহ বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্পের ভিত্তিপ্রস্তর ফলক উন্মোচন করেন।

মন্ত্রী কলেজের শিক্ষার্থী ও বিভিন্ন শিল্পীদের পরিবেশনায় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান উপভোগ করেন। পরে মন্ত্রী শিক্ষকদের সাথে কলেজের শিক্ষা ব্যবস্থাসহ বিভিন্ন বিষয়ে মতবিনিময় করেন। এর আগে সাহিত্য-সাংস্কৃতি ও ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের হাতে মন্ত্রী পুরস্কার তুলে দেন।

কলেজের অনুষ্ঠান শেষে মন্ত্রী লাকসাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ৫০ শয্যা থেকে ১৫০ শয্যায় উন্নীতকরণের বিষয়ে হাসপাতাল পরিদর্শন করেন। এসময় তিনি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নিয়মিত পরিস্কার পরিচ্ছন্ন রাখা এবং সকল ধরণের রোগীদের সুচিকিৎসা সেবা নিশ্চিত করতে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দেন।

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আমাদের সাথে কানেক্টেড থাকুন

আমাদের মোবাইল এপ্পসটি ডাউনলোড করুন